Dawah wa Tablig Islamic Website

Site Contact = Mob no. 01783385346 :: Email Address = shalampb@gmail.com
Page 2

INDEX

  1. নিশ্চয়তাবোধক তাশদীদযুক্ত কর্তৃবাচ্য আদেশসূচক ক্রিয়া
  2. নিশ্চয়তাবোধক তাশদীদযুক্ত নূনযোগে কর্মবাচ্য আদেশসূচক ক্রিয়া
  3. জযমযুক্ত নিশ্চয়তাবোধক নূনযোগে কর্তৃবাচ্য আদেশসূচক ক্রিয়া
  4. নিশ্চয়তাবোধক জযমযুক্ত নূনযোগে কর্মবাচ্য আদেশসূচক ক্রিয়া
  5. কর্মবাচ্য নিষেধাজ্ঞাসূচ ক্রিয়া
  6. তাসদীদযুক্ত নূনযোগে কর্তৃবাচক নিষেধাজ্ঞাসূচক ক্রিয়া
  7. তাসদীদযুক্ত নূনযোগে কর্মবাচক নিষেধাজ্ঞাসূচক ক্রিয়া
  8. জযমযুক্ত নিশ্চয়তাবোধক কর্তৃবাচ্য নূনযোগে নিশেধাজ্ঞাসূচক ক্রিয়া
  9. জযমযুক্ত নিশ্চয়তাবোধক কর্মবাচ্য নূনযোগে নিশেধাজ্ঞাসূচক ক্রিয়া
  10. উদ্ভাবিত বিশেষ্য
  11. কর্তৃবাচক বিশেষ্য
  12. কর্মবাচক বিশেষ্য
  13. স্থান বা কালবাচক বিশেষ্য
  14. যন্ত্রবাচক বিশেষ্য
  15. আধিক্যবাচক বিশেষ্য
  16. মুনশাইব

  17. মুনশাইব
  18. মুনশাইব পরিচিতি
  19. রূপান্তরশীল ক্রিয়া ও উহার প্রকারভেদ
  20. মূল তিন বর্ণবিশিষ্ট বাবসমূহের ছক
  21. বহুল প্রচলিত মূল তিন বর্ণবিশিষ্ট বাবসমূহ।
  22. ٱلْبَابُ ٱلْأَوَّلُ
  23. ٱلْبَابُ ٱلثَّانِى
  24. ٱلْبَابُ ٱلثَّالِثُ
  25. ٱلْبَابُ ٱلرَّابِعُ
  26. ٱلْبَابُ ٱلْخَامِسُ
  27. কম প্রচলিত মূল তিন বর্ণবিশিষ্ট বাবাসমূহ। ٱلْبَابُ ٱلْأَوَّلُ
  28. ٱلْبَابُ ٱلثَّانِى
  29. ٱلْبَابُ ٱلثَّالِثُ

Elmus Sarf

Page 2


امر معروف بانون ثقيلة

নিশ্চয়তাবোধক তাশদীদযুক্ত কর্তৃবাচ্য আদেশসূচক ক্রিয়া

গঠন প্রণালীঃ امر বা নির্দেশকে আরো জোরদার করার জন্য امر এর শেষে نون تاكيد আসে। نون ثقيلة বা তাসদীদ যুক্ত নূন امر এর সকল সীগার শেষে ব্যবহৃত হয়। চার تثنية ও দুই جمع مؤنث غائبجمع مؤنث حاصر এর نون ضمير থেকে نون ثقيلة কে পৃথক করার জন্য উভয় নূনের মধ্যে الف فاصلة নিতে হবে এবং نون ثقيلة কাসরা যুক্ত হবে। পক্ষান্তরে واحد مذكر غائبواحد مؤنث غائب আর واحد و جمع متكلم এর ل কালিম (শেষবর্ণ) ফাতাহ যুক্ত হবে এবং نون ثقيلة ও মাফতু (ফাতহযুক্ত) হবে। جمع مذكر غائبحاصر এর শেষোক্ত واو দূর করতঃ পূর্ববর্ণে জুম্মাহ দিতে হবে, যাতে বুঝা যায় উহার পরে واو ছিল। আর واحد مؤنث حاصر এর শেষোক্ত ى বিদূরিত করে পূর্ববর্ণে কাসর দিতে হবে। যাতে বিলুপ্ত ى এর প্রতি নির্দেশক হিসাবে কাজ করবে। এই তিন সীগাহর نون ثقيلة ও মাফতু হবে। আর ماضرع এর শেষে সংযোজিত نون اعرابى বিলুপ্ত ঘটবে।

امر معروف بانون ثقيلة

নিশ্চয়তাবোধক তাশদীদযুক্ত নূনযোগে কর্তৃবাচ্য আদেশসূচক ক্রিয়া

امر معروف بانون ثقيلة
নিশ্চয়তাবোধক তাশদীদযুক্ত নূনযোগে কর্তৃবাচ্য আদেশসূচক ক্রিয়া
تصريف – রুপান্তর;   معنى – অর্থ;  صيغة – রূপ;  جنس – লিঙ্গ;  شخص – পুরুষ;  واحد – একবচন;  تثنية – দ্বিবচন;  جمع – বহুবচন
تصريف অর্থ صغية جنس شخص
أِفْعَلَنَّ নিশ্চয়ই তুমি (একজন পুরুষ) কর واحد مذكر حاصر
أِفْعَلَانِّ নিশ্চয়ই তোমরা (দু’জন পুরুষ) কর تثنية
أِفْعَلُنَّ নিশ্চয়ই তোমরা (সকল পুরুষ) কর جمع
أِفْعَلِنَّ নিশ্চয়ই তুমি (একজন স্ত্রী) কর واحد مؤنث
أِفْعَلَانِّ নিশ্চয়ই তোমরা (দু’জন স্ত্রী) কর تثنية
أِفْعَلْنَانِّ নিশ্চয়ই তোমরা (সকল স্ত্রী) কর جمع
لِيَفْعَلَنَّ নিশ্চয়ই সে (একজন পুরুষ) করুক واحد مذكر غائب
لِيَفْعَلَانِّ নিশ্চয়ই তারা (দু’জন পুরুষ) করুক تثنية
لِيَفْعَلُنَّ নিশ্চয়ই তারা (সকল পুরুষ) করুক جمع
لِتَفْعَلَنَّ নিশ্চয়ই সে (একজন স্ত্রী) করুক واحد مؤنث
لِتَفْعَلَانِّ নিশ্চয়ই তারা (দু’জন স্ত্রী) করুক تثنية
لِيَفْعَلْنَانِّ নিশ্চয়ই তারা (সকল স্ত্রী) করুক جمع
لِاَفْعَلَنَّ নিশ্চয়ই আমার (একজন পুরুষ/স্ত্রী) করা উচিত واحد مؤنث/مذكر متكلم
لِنَفْعَلَنَّ নিশ্চয়ই আমাদের (দুইজন/সকল, পুরুষ/স্ত্রী) করা উচিত جمع/تثنية مؤنث/مذكر

امر مجهول بانون ثقيلة

নিশ্চয়তাবোধক তাশদীদযুক্ত নূনযোগে কর্মবাচ্য আদেশসূচক ক্রিয়া

امر مجهول بانون ثقيلة
নিশ্চয়তাবোধক তাশদীদযুক্ত নূনযোগে কর্মবাচ্য আদেশসূচক ক্রিয়া
تصريف – রুপান্তর;   معنى – অর্থ;  صيغة – রূপ;  جنس – লিঙ্গ;  شخص – পুরুষ;  واحد – একবচন;  تثنية – দ্বিবচন;  جمع – বহুবচন
تصريف অর্থ صغية جنس شخص
لِتُفْعَلَنَّ নিশ্চয়ই তুমি (একজন পুরুষ) কৃত হও واحد مذكر حاصر
لِتُفْعَلَانِّ নিশ্চয়ই তোমরা (দু’জন পুরুষ) কৃত হও تثنية
لِتُفْعَلُنَّ নিশ্চয়ই তোমরা (সকল পুরুষ) কৃত হও جمع
لِتُفْعَلِنَّ নিশ্চয়ই তুমি (একজন স্ত্রী) কৃত হও واحد مؤنث
لِتُفْعَلَانِّ নিশ্চয়ই তোমরা (দু’জন স্ত্রী) কৃত হও تثنية
لِتُفْعَلْنَانِّ নিশ্চয়ই তোমরা (সকল স্ত্রী) কৃত হও جمع
لِيُفْعَلَنَّ নিশ্চয়ই সে (একজন পুরুষ) কৃত হউক واحد مذكر غائب
لِيُفْعَلَانِّ নিশ্চয়ই তারা (দু’জন পুরুষ) কৃত হউক تثنية
لِيُفْعَلُنَّ নিশ্চয়ই তারা (সকল পুরুষ) কৃত হউক جمع
لِتُفْعَلَنَّ নিশ্চয়ই সে (একজন স্ত্রী) কৃত হউক واحد مؤنث
لِتُفْعَلَانِّ নিশ্চয়ই তারা (দু’জন স্ত্রী) কৃত হউক تثنية
لِيُفْعَلْنَانِّ নিশ্চয়ই তারা (সকল স্ত্রী) কৃত হউক جمع
لِاُفْعَلَنَّ নিশ্চয়ই আমি (একজন পুরুষ/স্ত্রী) কৃত হই বা আমাদের কৃত হওয়া উচিত واحد مؤنث/مذكر متكلم
لِنُفْعَلَنَّ নিশ্চয়ই আমরা (দুইজন/সকল, পুরুষ/স্ত্রী) কৃত হই বা আমাদের কৃত হওয়া উচিত جمع/تثنية مؤنث/مذكر

امر معروف بانون خفيفة

জযমযুক্ত নিশ্চয়তাবোধক নূনযোগে কর্তৃবাচ্য আদেশসূচক ক্রিয়া

গঠন প্রণালীঃ فعل مضارع হতে যেভাবে فعل امر بانون ثقيلة হয়, অনুরূপভাবে فعل مضارع হতে فعل امر بانون خفيفة গঠন করা হয় । কেবল শেষ বর্ণ নূনের উপর তাসদীদের বদলে জযম হবে। পক্ষান্তরে যে সকল সীগাতে نون ضميرنون ثقيلة এর মধ্যে الف فاصلة আসে ঐ সকল সীগাহতে উচ্চারণে অসুবিধার জন্য نون خفيفة হয় না। বাকী সীগাহ نون ثقيلة এর সীগার ন্যায় হবে। উল্লেখ্য যে, نون ثقيلةنون خفيفة এর সীগাহর মধ্যে অর্থগত কোন পার্থক্য নেই, শুধুমাত্র শব্দগত কিছুটা পার্থক্য আছে।

امر معروف بانون ثقيلة
জযমযুক্ত নিশ্চয়তাবোধক কর্তৃবাচ্য নূনযোগে আদেশসূচক ক্রিয়া
تصريف – রুপান্তর;   معنى – অর্থ;  صيغة – রূপ;  جنس – লিঙ্গ;  شخص – পুরুষ;  واحد – একবচন;  تثنية – দ্বিবচন;  جمع – বহুবচন
تصريف অর্থ صغية جنس شخص
أِفْعَلَنْ নিশ্চয়ই তুমি (একজন পুরুষ) কর واحد مذكر حاصر
   
أِفْعَلُنْ নিশ্চয়ই তোমরা (সকল পুরুষ) কর جمع
أِفْعَلِنْ নিশ্চয়ই তুমি (একজন স্ত্রী) কর واحد مؤنث
   
   
لِيَفْعَلَنْ নিশ্চয়ই সে (একজন পুরুষ) করুক واحد مذكر غائب
   
لِيَفْعَلُنْ নিশ্চয়ই তারা (সকল পুরুষ) করুক جمع
لِتَفْعَلَنْ নিশ্চয়ই সে (একজন স্ত্রী) করুক واحد مؤنث
   
   
لِاَفْعَلَنْ নিশ্চয়ই আমার (একজন পুরুষ/স্ত্রী) করা উচিত واحد مؤنث/مذكر متكلم
لِنَفْعَلَنْ নিশ্চয়ই আমাদের (দুইজন/সকল, পুরুষ/স্ত্রী) করা উচিত جمع/تثنية مؤنث/مذكر

امر مجهول بانون ثقيلة

নিশ্চয়তাবোধক জযমযুক্ত নূনযোগে কর্মবাচ্য আদেশসূচক ক্রিয়া

امر مجهول بانون ثقيلة
নিশ্চয়তাবোধক জযমযুক্ত নূনযোগে কর্মবাচ্য আদেশসূচক ক্রিয়া
تصريف – রুপান্তর;   معنى – অর্থ;  صيغة – রূপ;  جنس – লিঙ্গ;  شخص – পুরুষ;  واحد – একবচন;  تثنية – দ্বিবচন;  جمع – বহুবচন
تصريف অর্থ صغية جنس شخص
لِتُفْعَلَنْ নিশ্চয়ই তুমি (একজন পুরুষ) কৃত হও واحد مذكر حاصر
   
لِتُفْعَلُنْ নিশ্চয়ই তোমরা (সকল পুরুষ) কৃত হও جمع
لِتُفْعَلِنْ নিশ্চয়ই তুমি (একজন স্ত্রী) কৃত হও واحد مؤنث
   
   
لِيُفْعَلَنْ নিশ্চয়ই সে (একজন পুরুষ) কৃত হউক واحد مذكر غائب
   
لِيُفْعَلُنْ নিশ্চয়ই তারা (সকল পুরুষ) কৃত হউক جمع
لِتُفْعَلَنْ নিশ্চয়ই সে (একজন স্ত্রী) কৃত হউক واحد مؤنث
   
   
لِاُفْعَلَنْ নিশ্চয়ই আমি (একজন পুরুষ/স্ত্রী) কৃত হই বা আমাদের কৃত হওয়া উচিত واحد مؤنث/مذكر متكلم
لِنُفْعَلَنْ নিশ্চয়ই আমরা (দুইজন/সকল, পুরুষ/স্ত্রী) কৃত হই বা আমাদের কৃত হওয়া উচিত جمع/تثنية مؤنث/مذكر

التمرين

অনুশীলনী

  • ১। فعل امر কাকে বলে? উদাহরণ সহ বর্ণনা কর।
  • ২। امر حاصر معروف এর গঠন প্রণালী বর্ণনা কর।
  • ৩। সীগাহ ও বহস বলঃ لِتُفْعَلَنْ، لِيُفْعَلْنَ، لِنُفْعَلْ، إِفْعَلْ، إِفْعَلْنَ، إِفْعَلِى، لِيَفْعَلْ، لِيَفْعَلُوا، لِيَفْعَلْنَ، لِأَفْعَلْ، لِتُفْعَلْ
  • ৪। امر معروف بانون ثقيلة এর গঠন প্রণালী বর্ণনা কর।
  • ৫। নিম্নের শব্দগুলো কোনটি কোন صيغة বল। لِنَفْعَلَنْ، إِفْعَلَنَّ، إِفْعَلْنَانِّ، لِيَفْعَلْنَانِّ، لِاَفْعَلَنَّ، إِفْعَلُنْ، لِيَفْعَلَنْ
  • ৬। আরবী করঃ
    (ক) তুমি (একজন পুরুষ) কর।
    (খ) তোমরা (সকল স্ত্রী) কর।
    (গ) সে (একজন পুরুষ) করুক।
    (ঘ) আমাদের করা উচিত।
    (ঙ) তুমি (একজন পুরুষ) কৃত হও।
    (চ) নিশ্চয়ই তোমরা (দু’জন পুরুষ) কর।
    (ছ) নিশ্চয়ই তোমরা (সকল স্ত্রী) কর।

فعل نهى

নিষেধাজ্ঞাসূচক ক্রিয়া

সংজ্ঞাঃ যে فعل দ্বারা বর্তমান বা ভবিষ্যতকালে কোন কাজ করতে নিষেধ করা বুঝায় তাকে فعل نهى বলে। যথাঃ لَا تَفْعَلْ – করোনা, لَا تَذْهَبْ – যেয়োনা, لَاتَاكُلْ – খেয়োনা।

গঠন প্রণালীঃ نهى গঠন করতে হলে فعل مضارع এর শুরুতে একটি لَائى نهى বা নিশেধাজ্ঞসূচক لا নিতে হবে। এই لا পাঁচ স্থানে জযম দিবে جمع متكلم، واحد متكلم، واحد مذكر حاضر، واحد مؤنث غائب، واحد مذكر غائب তবে শেষ কালিমায় হরফে ইল্লাত থাকলে তা দূরীভূত হবে। যথাঃ تَدْعُو হতে لَاتَدْعُو তবে শেষ কালিমাতে হরফে ইল্লাত থাকলে তা দূরীভূত হবে। যথাঃ تَدْعُو হতে لَا تَدْعُو , تَرْمِى হতে لَا تَرْمِى ইত্যাদি।

আর مضارع এর সাত স্থান হতে نون اعرابى বিলুপ্ত হবে। উক্ত সাত স্থান হচ্ছে – চার تثنية দুই جمع مذكر غائبحاضر এবং واحد مؤنث حاضر – পক্ষান্তরে جمع مؤنث غائبحاضر এর নূন পূর্বের ন্যায় বহাল থাকবে।

উল্লেখ্য যে, فعل مضارع এর ন্যায় نهى এর সাথেও نون تاكيد ব্যাবহৃত হয়ে থাকে।

فعل نهى معروف
কর্তৃবাচ্য নিষেধাজ্ঞাসূচ ক্রিয়া
تصريف – রুপান্তর;   معنى – অর্থ;  صيغة – রূপ;  جنس – লিঙ্গ;  شخص – পুরুষ;  واحد – একবচন;  تثنية – দ্বিবচন;  جمع – বহুবচন
تصريف অর্থ صغية جنس شخص
لَا تَفْعَلْ তুমি (একজন পুরুষ) করো না واحد مذكر حاضر
لَا تَفْعَلَا তোমরা (দু’জন পুরুষ) করো না تثنية
لَا تَفْعَلُوا তোমরা (সকল পুরুষ) করো না جمع
لَا تَفْعَلِى তুমি (একজন স্ত্রী) করো না واحد مؤنث
لَا تَفْعَلَا তোমরা (দু’জন স্ত্রী) করো না تثنية
لَا تَفْعَلْنَ তোমরা (সকল স্ত্রী) করো না جمع
لَا يَفْعَلْ সে (একজন পুরুষ) না করুক واحد مذكر غائب
لَا يَفْعَلَا তারা (দু’জন পুরুষ) না করুক تثنية
لَا يَفْعَلُوا তারা (সকল পুরুষ) না করুক جمع
لَا تَفْعَلْ সে (একজন স্ত্রী) না করুক واحد مؤنث
لَا تَفْعَلَا তারা (দু’জন স্ত্রী) না করুক تثنية
لَا يَفْعَلْنَ তারা (সকল স্ত্রী) না করুক جمع
لَا أَفْعَلْ আমি (একজন পুরুষ/স্ত্রী) যেন না করি واحد مؤنث/مذكر متكلم
لَا نَفْعَلْ আমরা (দুইজন/সকল, পুরুষ/স্ত্রী) যেন না করি جمع/تثنية مؤنث/مذكر

فعل نهى مجهول

কর্মবাচ্য নিষেধাজ্ঞাসূচ ক্রিয়া

فعل نهى مجهول
কর্মবাচ্য নিষেধাজ্ঞাসূচ ক্রিয়া
تصريف – রুপান্তর;   معنى – অর্থ;  صيغة – রূপ;  جنس – লিঙ্গ;  شخص – পুরুষ;  واحد – একবচন;  تثنية – দ্বিবচন;  جمع – বহুবচন
تصريف অর্থ صغية جنس شخص
لَا تُفْعَلْ তুমি (একজন পুরুষ) কৃত হয়োনা واحد مذكر حاضر
لَا تُفْعَلَا তোমরা (দু’জন পুরুষ) কৃত হয়োনা تثنية
لَا تُفْعَلُوا তোমরা (সকল পুরুষ) কৃত হয়োনা جمع
لَا تُفْعَلِى তুমি (একজন স্ত্রী) কৃত হয়োনা واحد مؤنث
لَا تُفْعَلَا তোমরা (দু’জন স্ত্রী) কৃত হয়োনা تثنية
لَا تُفْعَلْنَ তোমরা (সকল স্ত্রী) কৃত হয়োনা جمع
لَا يُفْعَلْ সে (একজন পুরুষ) কৃত না হোক واحد مذكر غائب
لَا يُفْعَلَا তারা (দু’জন পুরুষ) কৃত না হোক تثنية
لَا يُفْعَلُوا তারা (সকল পুরুষ) কৃত না হোক جمع
لَا تُفْعَلْ সে (একজন স্ত্রী) কৃত না হোক واحد مؤنث
لَا تُفْعَلَا তারা (দু’জন স্ত্রী) কৃত না হোক تثنية
لَا يُفْعَلْنَ তারা (সকল স্ত্রী) কৃত না হোক جمع
لَا أُفْعَلْ আমি (একজন পুরুষ/স্ত্রী) যেন কৃত না হই واحد مؤنث/مذكر متكلم
لَا نُفْعَلْ আমরা (দুইজন/সকল, পুরুষ/স্ত্রী) যেন কৃত না হই جمع/تثنية مؤنث/مذكر

نهى معروف بانون ثقيلة

তাসদীদযুক্ত নূনযোগে কর্তৃবাচক নিষেধাজ্ঞাসূচক ক্রিয়া

জ্ঞতব্যঃ نهى معروف بانون ثقيلة و خفيفة এবং نهى مجهول بانون ثقيلة و خفيفة এর গঠন প্রণালী পূর্ববর্তী فعل امر بانون ثقيلة و خفيفة এর ন্যায়।

نهى معروف بانون ثقيلة
তাসদীদযুক্ত নূনযোগে কর্তৃবাচক নিষেধাজ্ঞাসূচক ক্রিয়া
تصريف – রুপান্তর;   معنى – অর্থ;  صيغة – রূপ;  جنس – লিঙ্গ;  شخص – পুরুষ;  واحد – একবচন;  تثنية – দ্বিবচন;  جمع – বহুবচন
تصريف অর্থ صغية جنس شخص
لَا تَفْعَلَنَّ নিশ্চয়ই তুমি (একজন পুরুষ) করো না واحد مذكر حاضر
لَا تَفْعَلَانِّ নিশ্চয়ই তোমরা (দু’জন পুরুষ) করো না تثنية
لَا تَفْعَلُنَّ নিশ্চয়ই তোমরা (সকল পুরুষ) করো না جمع
لَا تَفْعَلِنَّ নিশ্চয়ই তুমি (একজন স্ত্রী) করো না واحد مؤنث
لَا تَفْعَلَانِّ নিশ্চয়ই তোমরা (দু’জন স্ত্রী) করো না تثنية
لَا تَفْعَلْنَانِّ নিশ্চয়ই তোমরা (সকল স্ত্রী) করো না جمع
لَا يَفْعَلَنَّ নিশ্চয়ই সে (একজন পুরুষ) না করুক واحد مذكر غائب
لَا يَفْعَلَانِّ নিশ্চয়ই তারা (দু’জন পুরুষ) না করুক تثنية
لَا يَفْعَلُنَّ নিশ্চয়ই তারা (সকল পুরুষ) না করুক جمع
لَا تَفْعَلَنَّ নিশ্চয়ই সে (একজন স্ত্রী) না করুক واحد مؤنث
لَا تَفْعَلَانِّ নিশ্চয়ই তারা (দু’জন স্ত্রী) না করুক تثنية
لَا يَفْعَلْنَانِّ নিশ্চয়ই তারা (সকল স্ত্রী) না করুক جمع
لَا أَفْعَلَنَّ নিশ্চয়ই আমি (একজন পুরুষ/স্ত্রী) যেন না করি واحد مؤنث/مذكر متكلم
لَا نَفْعَلَنَّ নিশ্চয়ই আমরা (দুইজন/সকল, পুরুষ/স্ত্রী) যেন না করি جمع/تثنية مؤنث/مذكر

نهى مجهول بانون ثقيلة

তাসদীদযুক্ত নূনযোগে কর্মবাচক নিষেধাজ্ঞাসূচক ক্রিয়া

نهى مجهول بانون ثقيلة
তাসদীদযুক্ত নূনযোগে কর্মবাচক নিষেধাজ্ঞাসূচক ক্রিয়া
تصريف – রুপান্তর;   معنى – অর্থ;  صيغة – রূপ;  جنس – লিঙ্গ;  شخص – পুরুষ;  واحد – একবচন;  تثنية – দ্বিবচন;  جمع – বহুবচন
تصريف অর্থ صغية جنس شخص
لَا تُفْعَلَنَّ নিশ্চয়ই তুমি (একজন পুরুষ) কৃত হয়োনা واحد مذكر حاضر
لَا تُفْعَلَانِّ নিশ্চয়ই তোমরা (দু’জন পুরুষ) কৃত হয়োনা تثنية
لَا تُفْعَلُنَّ নিশ্চয়ই তোমরা (সকল পুরুষ) কৃত হয়োনা جمع
لَا تُفْعَلِنَّ নিশ্চয়ই তুমি (একজন স্ত্রী) কৃত হয়োনা واحد مؤنث
لَا تُفْعَلَانِّ নিশ্চয়ই তোমরা (দু’জন স্ত্রী) কৃত হয়োনা تثنية
لَا تُفْعَلْنَانِّ নিশ্চয়ই তোমরা (সকল স্ত্রী) কৃত হয়োনা جمع
لَا يُفْعَلَنَّ নিশ্চয়ই সে (একজন পুরুষ) কৃত না হউক واحد مذكر غائب
لَا يُفْعَلَانِّ নিশ্চয়ই তারা (দু’জন পুরুষ) কৃত না হউক تثنية
لَا يُفْعَلُنَّ নিশ্চয়ই তারা (সকল পুরুষ) কৃত না হউক جمع
لَا تُفْعَلَنَّ নিশ্চয়ই সে (একজন স্ত্রী) কৃত না হউক واحد مؤنث
لَا تُفْعَلَانِّ নিশ্চয়ই তারা (দু’জন স্ত্রী) কৃত না হউক تثنية
لَا يُفْعَلْنَانِّ নিশ্চয়ই তারা (সকল স্ত্রী) কৃত না হউক جمع
لَا أُفْعَلَنَّ নিশ্চয়ই আমি (একজন পুরুষ/স্ত্রী) যেন কৃত না হই واحد مؤنث/مذكر متكلم
لَا نُفْعَلَنَّ নিশ্চয়ই আমরা (দুইজন/সকল, পুরুষ/স্ত্রী) যেন কৃত না হই جمع/تثنية مؤنث/مذكر

امر معروف بانون خَفيفة

জযমযুক্ত নিশ্চয়তাবোধক কর্তৃবাচ্য নূনযোগে নিশেধাজ্ঞাসূচক ক্রিয়া

امر معروف بانون خَفيفة
জযমযুক্ত নিশ্চয়তাবোধক কর্তৃবাচ্য নূনযোগে নিশেধাজ্ঞাসূচক ক্রিয়া
تصريف – রুপান্তর;   معنى – অর্থ;  صيغة – রূপ;  جنس – লিঙ্গ;  شخص – পুরুষ;  واحد – একবচন;  تثنية – দ্বিবচন;  جمع – বহুবচন
تصريف অর্থ صغية جنس شخص
لَا تَفْعَلَنْ নিশ্চয়ই তুমি (একজন পুরুষ) কর না واحد مذكر حاصر
   
لَا تَفْعَلُنْ নিশ্চয়ই তোমরা (সকল পুরুষ) কর না جمع
لَا تَفْعَلِنْ নিশ্চয়ই তুমি (একজন স্ত্রী) কর না واحد مؤنث
   
   
لَا يَفْعَلَنْ নিশ্চয়ই সে (একজন পুরুষ) না করুক واحد مذكر غائب
   
لَا يَفْعَلُنْ নিশ্চয়ই তারা (সকল পুরুষ) না করুক جمع
لَا تَفْعَلَنْ নিশ্চয়ই সে (একজন স্ত্রী) না করুক واحد مؤنث
   
   
لَا أَفْعَلَنْ নিশ্চয়ই আমার (একজন পুরুষ/স্ত্রী) না করি واحد مؤنث/مذكر متكلم
لَا نَفْعَلَنْ নিশ্চয়ই আমাদের (দুইজন/সকল, পুরুষ/স্ত্রী) না করি جمع/تثنية مؤنث/مذكر

امر مجهول بانون خَفيفة

জযমযুক্ত নিশ্চয়তাবোধক কর্মবাচ্য নূনযোগে নিশেধাজ্ঞাসূচক ক্রিয়া

امر مجهول بانون خَفيفة
জযমযুক্ত নিশ্চয়তাবোধক কর্মবাচ্য নূনযোগে নিশেধাজ্ঞাসূচক ক্রিয়া
تصريف – রুপান্তর;   معنى – অর্থ;  صيغة – রূপ;  جنس – লিঙ্গ;  شخص – পুরুষ;  واحد – একবচন;  تثنية – দ্বিবচন;  جمع – বহুবচন
تصريف অর্থ صغية جنس شخص
لَا تُفْعَلَنْ নিশ্চয়ই তুমি (একজন পুরুষ) কৃত হইয়ো না واحد مذكر حاصر
   
لَا تُفْعَلُنْ নিশ্চয়ই তোমরা (সকল পুরুষ) কৃত হইয়ো না جمع
لَا تُفْعَلِنْ নিশ্চয়ই তুমি (একজন স্ত্রী) কৃত হইয়ো না واحد مؤنث
   
   
لَا يُفْعَلَنْ নিশ্চয়ই সে (একজন পুরুষ) কৃত না হউক واحد مذكر غائب
   
لَا يُفْعَلُنْ নিশ্চয়ই তারা (সকল পুরুষ) কৃত না হউক جمع
لَا تُفْعَلَنْ নিশ্চয়ই সে (একজন স্ত্রী) কৃত না হউক واحد مؤنث
   
   
لَا أُفْعَلَنْ নিশ্চয়ই আমার (একজন পুরুষ/স্ত্রী) কৃত না হই واحد مؤنث/مذكر متكلم
لَا نُفْعَلَنْ নিশ্চয়ই আমাদের (দুইজন/সকল, পুরুষ/স্ত্রী) কৃত না হই جمع/تثنية مؤنث/مذكر

اَلتَّمْرِيْنُ

অনুশীলনী

১। فعل امر কাকে বলে? তা কিভাবে গঠিত হয়?
২। لام امر যোগে কোন কোন প্রকার امر গঠন করা হয়? তা مضارع এর صيغة সমূহে কি কি পরিবর্তন সাধন করে?
৩। فعل نهى কাকে বলে? তার গঠন প্রণালী বর্ণনা কর।

৪। নিম্নলিখিত فعل দ্বারা امرنهى এর صيغة গুলোরা রূপান্তর করা।
(ক) يَكْتُبُ – সে লিখছে, (খ) تَلْعَبُ – তুমি খেলা করছ, (গ) يَشْرِبُ – সে পান করছে, (ঘ) يَذْهَبُ – সে যাচ্ছে।

৫। অর্থ, সীগাহ এবং বহস বলঃ
لِيَخْشَ، اِرْفَعُوا، اِفْعَلَا، اُدْخُلْ، لَا تَلْعَبْ، لَاَفْعَلَنَّ، لِيَسْمَعَانِّ

৬। আরবী বলঃ
(ক) তুমি (একজন পুরুষ) যিক্‌র কর।
(খ) তুমি (একজন স্ত্রী) লেখ।
(গ) নিশ্চয়ই আমাদের সাহায্য করা উচিত।
(ঘ) নিশ্চয়ই তার (একজন পুরুষ) যাওয়া উচিত।


اِسْم مُشتق

উদ্ভাবিত বিশেষ্য

সংজ্ঞাঃ مصدر বা ক্রিয়ামূল হতে বর্হিগত اسم বা বিশেষ্য পদকে اسم مشتق বা উদ্ভাবিত বিশেষ্য বলে। যথাঃ نَصْرٌ হতে نَاصِرٌ – (সাহায্যকারী) বা مَنْصُورٌ – (সাহায্যকৃত)

প্রকারভেদঃ اسم مشتق বা উদ্ভাবিত বিশেষ্য সাত প্রকারঃ
১। اسم فَاعل বা কর্তৃবাচক বিশেষ্য, যথা- فَاعِلٌ
২। اسم مفعول বা কর্মবাচক বিশেষ্য, যথা – مَفْعُولٌ
৩। اسم ظرف বা স্থান বা কালবাচক বিশেষ্য, যথা – مَفْعَلٌ
৪। اسم آلة বা যন্ত্রবোধক বিশেষ্য, যথা – مِفْعَالٌ
৫। اسم تَفْضيل বা আধিক্যবোধক বিশেষ্য, যথা – اَفْعَلُ
৬। صفت مشبه বা স্থায়ী গুণবাচক বিশেষ্য, যথা – فَعِيلٌ
৭। اسم فاعل مُبَالِغَة বা গুণের আধিক্যবোধক বিশেষ্য, যথা – فَعَّالَةٌ

ইহাদের প্রথম পাঁচ প্রকার বিভিন্নভাবে রূপান্তরিত হয়ে থাকে বিধায় পর্যাক্রমে ইহাদের বিস্তারিত বিবরণ প্রদান করা হলো।

اسم فاغل

কর্তৃবাচক বিশেষ্য

সংজ্ঞাঃ যে اسم বা বিশেষ্য দ্বারা কোন ক্রিয়া সম্পন্ন হওয়া বুঝায় তাকে اسم فاعل বলে। যেমনঃ كَاتِبٌ – একজন লিখক। এখানে লিখা ক্রিয়াটি একজন লেখক দ্বারা সম্পন্ন হয়েছে বিধায় লেখক বা كَاتِبٌ শব্দটি اسم فاعل

গঠন প্রণালীঃ مضارع معروف হতে اسم فاعل গঠন করতে হয়। প্রথমে علامت مضارع বিদূরিত করে ف কালিমাতে فتحة দিতে হবে। আতঃপর فع কালিমার মাঝখানে একটি الف فاعل নিতে হয় এবং ع কালিমাতে كسره না থাকলে তাতে কাসরা দিয়ে ل কালিমাতে জুম্মাহ তানবিন প্রদান করলেই اسم فاعل গঠিত হবে। যথাঃ يَضْرِبُ হতে ضَارِبٌ এবং يَسْمَعُ হতে سَامِعٌيَنْصُرُ হতে نَاصِرٌ ইত্যাদি।

اسم فاعل

কর্তৃবাচক বিশেষ্য

اسم فاعل
কর্তৃবাচক বিশেষ্য
تصريف – রুপান্তর;   معنى – অর্থ;  صيغة – রূপ;  جنس – লিঙ্গ;  شخص – পুরুষ;  واحد – একবচন;  تثنية – দ্বিবচন;  جمع – বহুবচন
تصريف অর্থ صغية جنس
فَاعِلٌ একজন (পুরুষ) কর্তা واحد مذكر
فَاعِلَانِ দু’জন (পুরুষ) কর্তা تثنية
فَاعِلُونَ সকল (পুরুষ) কর্তা جمع
فَاعِلَةٌ একজন (স্ত্রী) কর্ত্রী واحد مؤنث
فَاعِلَتَانِ দু’জন (স্ত্রী) কর্ত্রী تثنية
فَاعِلَاتٌ সকল (স্ত্রী) কর্ত্রী جمع

اسم مفعول

কর্মবাচক বিশেষ্য

সংজ্ঞাঃ যে اسم এর উপর ক্রিয়াটি পতিত হয় তাকে اسم مفعول বলে। যেমনঃ مَضْرُوبٌ প্রহৃত এক ব্যক্তি। এখানে এক ব্যক্তির উপর জনৈক প্রহারকারীর প্রহার ক্রিয়াটি পতিত হয়েছে বিধায় مَضْرُوبٌ শব্দটি اسم مفعول

গঠন প্রণালীঃ مضارع مجهول হতে اسم مفعول গঠিত হয়। প্রথমে علامت مضارع দূর করতঃ তদস্থলে একটি ফাতাহ যুক্ত মীম م বসাতে হবে। অতঃপর ع কালিমাতে যুম্মাহ দিয়া عل কলিমাদ্বয়ের মাঝখানে একটি و নিয়া ل কালিমাতে যুম্মাহ তানবীন প্রদান করিলেই اسم مفعول গঠিত হয়।

اسم مفعول
কর্মবাচক বিশেষ্য
تصريف – রুপান্তর;   معنى – অর্থ;  صيغة – রূপ;  جنس – লিঙ্গ;  شخص – পুরুষ;  واحد – একবচন;  تثنية – দ্বিবচন;  جمع – বহুবচন
تصريف অর্থ صغية جنس
مَفْعُولٌ একজন (পুরুষ) কৃত واحد مذكر
مَفْعُولَانِ দু’জন (পুরুষ) কৃত تثنية
مَفْعُولُونَ সকল (পুরুষ) কৃত جمع
مَفْعُولَةٌ একজন (স্ত্রী) কৃত واحد مؤنث
مَفْعُولَتَانِ দু’জন (স্ত্রী) কৃত تثنية
مَفْعُولَاتٌ সকল (স্ত্রী) কৃত جمع

اسم ظَرف

স্থান বা কালবাচক বিশেষ্য

সংজ্ঞাঃ যে اسم দ্বারা কোন ক্রিয়া সংগঠিত হওয়ার স্থান বা কালকে বুঝায় তাকে اسم ظرف বলে। যথাঃ مَسْجِدٌ – সিজদার স্থান, مَغْرِبٌ – সূর্যাস্তের সময়। এখানে সিজদা ক্রিয়াটি সংগঠিত হওয়ার স্থানকে مَسْجِدٌ এবং সূর্য অস্ত যাওয়া ক্রিয়াটি সংগঠিত হওয়ার সময়কে مَغْرِبٌ বলা হয়েছে যা اسم ظَرف

اسم ظرف দু’ভাগে বিভক্তঃ
এক- ظَرف مكان – যে اسم দ্বারা ক্রিয়া সংঘটিত হওয়ার স্থানকে বুঝায় তাকে ظرف مكان বলে। যথাঃ مَسْجِدٌ – সিজাদার স্থান।
দুই- ظرف زمان – যে اسم দ্বারা ক্রিয়া সংগঠিত হওয়ার সময়কে বুঝায় তাকে ظرف زمان বলে। যথাঃ مَغْرِبٌ – সূর্যাস্তের সময়।

গঠন প্রণালীঃ فعل مضارع হতে اسم ظرف গঠিত হয়। প্রথমে علامت مضارع বিদূরিত করে উক্ত স্থানে একট ফাতাহ বিশিষ্ট মীম م নিতে হবে। অতঃপর ع কলিমায় ضمة থাকলে উহা দূর করে فتحة দিতে হবে। কিন্তু ع কালিমাতে فتحة বা كسرة থাকলে উহাই বহাল থাকবে। পরিশেষে ل কালিমাতে যুম্মাহ তানবীন দিলেই اسم ظرف গঠিত হবে। যথাঃ يَنْصُرُ হতে مَنْصَرٌ এবং يَفْعَلُ হতে مَفْعَلٌ এবং يَضْرِبُ হতে مَضْرِبٌاسم ظرف এর সর্বমোট সীগহ ৩টি।

اسم ظرف
স্থান বা কালবাচক বিশেষ্য
تصريف – রুপান্তর;   معنى – অর্থ;  صيغة – রূপ;  جنس – লিঙ্গ;  شخص – পুরুষ;  واحد – একবচন;  تثنية – দ্বিবচন;  جمع – বহুবচন
تصريف অর্থ صغية
مَفْعَلٌ কর্মের একটি স্থান বা কাল واحد
مَفْعَلَانِ কর্মের দু’টি স্থান বা কাল تثنية
مَفَاعِلٌ কর্মের অনেক স্থান বা কাল جمع

اسم آلة

যন্ত্রবাচক বিশেষ্য

সংজ্ঞাঃ যে اسم দ্বারা ক্রিয়া সম্পন্ন হওয়ার যন্ত্রপাতি বা হাতিয়ারের নাম বুঝায় তাকে اسم آلة বলে। যথাঃ مِيزَانٌ – পরিমাপের যন্ত্র বা দাঁড়িপাল্লা।

উল্লেখ্য যে, যন্ত্র ছোট, মাঝারী ও বড় ধরনের হতে পারে। এই হিসাবে আরবীতে اسم آلة তিন প্রকার। যথাঃ صُغْرَٰى – ছোট وُسْطَٰى – মধ্যম, كُبْرَٰى – বড়

গঠন প্রণালীঃ فعل مضارغ হতে اسم آلة এর সীগাহ সমূহ গঠিত হয়। যথাঃ

(ক) صُغْرَٰى :- প্রথমে علامت مضارغ দূরীভূত করে উক্ত স্থানে একটি কাসরা যুক্ত মীম নিতে হবে। অতঃপর ع কালিমাতে ফাতাহ না থাকলে ফাতাহ দিয়া ل কালিমাতে যুম্মাহ তানবীন দিলেই اسم آلة এর صُغْرَٰى এর সীগাহ গঠিত হবে। যথাঃ يَفْعَلُ হতে مِفْعَلٌ

(খ) وُسْطَٰى :- প্রথমে صُغْرَٰى এর ل কালিমাতে ফাতাহ দিয়া একটি যুম্মাহ তানবীন বিশিষ্ট ة যুক্ত করলেই اسم آلة এর وُسْطَٰى সীগাহ গঠিত হবে। যথাঃ مِفْعَلٌ হতে مِفْعَلَةٌ

(গ) كُبْرَٰى :- প্রথমে صُغْرَٰى এর সীগাহর ع কালিমার সহিত একটি ا যুক্ত করলেই اسم آلة এর كُبْرَٰى এর সীগাহ গঠিত হবে। যথাঃ مِفْعَلٌ হতে مِفْعَالٌ

প্রকাশ থাকে যে শ্রেণী ও বচনভেদে اسم آلة এর নয়টি সীগাহ হয়ে থাকে।

اسم آلة – যন্ত্রবাচক বিশেষ্য
تصريف – রুপান্তর;   معنى – অর্থ;  صيغة – রূপ;  قسم – শ্রেণী;  صُغْرَٰى – ছোট;  وُسْطَٰى – মধ্যম;  كُبْرَٰى – বড়
تصريف অর্থ قسم صيغة
مِفْعَلٌ কাজের একটি ছোট যন্ত্র صُغْرَٰى واحد
مِفْعَلَةٌ কাজের একটি মধ্যম যন্ত্র وُسْطَٰى
مِفْعَالٌ কাজের একটি বড় যন্ত্র كُبْرَٰى
مِفْعَلَانِ কাজের দু’টি ছোট যন্ত্র صُغْرَٰى تثنية
مِفْعَلَتَانِ কাজের দু’টি মধ্যম যন্ত্র وُسْطَٰى
مِفْعَالَانِ কাজের দু’টি বড় যন্ত্র كُبْرَٰى
مَفَاعِلُ কাজের অনেক ছোট যন্ত্র صُغْرَٰى جمع
مَفَاعِلُ কাজের অনেক মধ্যম যন্ত্র وُسْطَٰى
مَفَاعِيلُ কাজের অনেক বড় যন্ত্র كُبْرَٰى

اسم تفضيل

আধিক্যবাচক বিশেষ্য

সংজ্ঞাঃ যে اسم দ্বারা এক বা একাধিক বস্তুর মধ্যকার দোষ বা গুণের আধিক্যের তুলনা বুঝায় তাকে اسم تفضيل বলে। যেমনঃ أَعْلَمُ – খুব জ্ঞানী, أَكْبَرُ – অনেক বড়।

গঠন প্রণালীঃ فعل مضارع হতে اسم تفضيل গঠিত হয়। তবে مذكرمؤنث এর সীগাহ গঠনের ভিন্ন ভিন্ন পদ্ধতি রয়েছে। নিম্নে পদ্ধতিদ্বয় বর্ণিত হলো।

(ক) مذكر :- প্রথমে علامت مضارع দূর করতঃ উক্ত স্থানে ফাতাহ বিশিষ্ট একটি হামজা أ বসিয়ে ع কালিমাতে ফাতাহ দিলে اسم تفضيل এর مذكر এর সীগাহ গঠিত হবে। যথাঃ يَفْعَلُ হতে أَفْعَلُ

(খ) مؤنث :- প্রথমে علامت দূর করতঃ ف কালিমায় যুম্মাহ ع কালিমায় جزمل কালিমায় ফাতাহ দিতে হবে। অতঃপর একটি الف مقصورة যোগ করলেই اسم تفضيل এর مؤنث এর সীগাহ গঠিত হবে। যথাঃ تَفْعَلُ হতে فُعْلَٰى
اسم تفضيل এর ছয়টি সীগাহ হয়ে থাকে।

اسم تفضيل – আধিক্যবাচক বিশেষ্য
تصريف – রুপান্তর;   معنى – অর্থ;  صيغة – রূপ;  جنس – লিঙ্গ;  واحد – একবচন;  تثنية – দ্বিবচন;  جمع – বহুবচন
تصريف অর্থ صيغة جنس
أَفْعَلُ অধিক কার্যসম্পাদনকারী একজন পুরুষ واحد مذكر
أَفْعَلَانِ অধিক কার্যসম্পাদনকারী দুইজন পুরুষ تثنية
أَفْعَلُونَ/أَفَاعِلُ অধিক কার্যসম্পাদনকারী সকল পুরুষ جمع
فُعْلَٰى অধিক কার্যসম্পাদনকারী একজন স্ত্রী واحد مؤنث
فُعْلَيَانِ অধিক কার্যসম্পাদনকারী দুইজন স্ত্রী تثنية
فُعَلٌ/فُعْلَيَاتٌ অধিক কার্যসম্পাদনকারী সকল স্ত্রী جمع

اَلتَّمْرِينُ

অনুশীলনী

১। اسم مشتق কাকে বলে? উহা কত প্রকার ও কি কি?
২। اسم فاعل কাকে বলে? اسم فاعل এর গঠন প্রণালী বর্ণনা কর।
৩। اسم مفعول কাকে বলে? اسم مفعول এর গঠন প্রণালী বর্ণনা কর।
৪। اسم ظرف কাকে বলে? উহা কত প্রকার ও কি কি?
৫। اسم آلة কাকে বলে? اسم آلة গঠনের কয়টি পদ্ধতি আছে? সেগুলো কি কি?
৬। اسم تفضيل কাকে বলে? اسم تفضيل এর সীগাহ কয়টি ও কি কি?
৭। صيغةبحث বলঃ كَاتِبٌ، مَضْرُبُونَ، مَحْكَمٌ، مِفْتَاحٌ، مِسْوَاكٌ، أَعْلَمُ، أَفَاعِلُ


بِسْمِ اللهِ الرَّحْمَٰنِ الرَّحِيمِ

مُنْشَعِبٌ

মুনশাইব

ٱلْحَمْدُ لِلَّهِ رَبِّ ٱلْعَلَمِينَ وَصَّلَٰوةُ وَٱلسَّلَامُ عَلَٰى رَسُولِهِۦ مُحَمَّدٍ وَّأالِهِۦ وَأَصْحَابِهِۦ أَجْمَعِينَ

تَعْرِيف بِالْمُنْشَعِب

মুনশাইব পরিচিতিঃ

مُنْشَعِب শব্দটি صِيغَة = وَاحد مُذَكَّر، بحث = إِسْم فَاعِل বা একবচন, পুংলিঙ্গ, কর্তৃকারক বিশেষ্য, বাবে إِنْفِعَالٌ মূল অক্ষর হচ্চে ش – ع – ب আরবীতে شُعَبٌ অর্থ হচ্ছে একত্রিত করা বা বিচ্ছিন্ন করা। আর مُنْشَعبٌ অর্থ হচ্ছে শাখা-প্রশাখা নির্গমনকারী। আরবী ভাষায় বিভিন্ন শব্দ বিভিন্নভাবে রূপান্তরিত ও পরিবর্তিত হয়ে বিভিন্নরূপ ধারণ করে। مُنْشَعِب গ্রন্থে আরবী শব্দসমূহের বিভিন্নরূপ ও শাখা-প্রশাখা নিয়ে আলোচনা করা হয়েছে।

ٱلْأَفَعَالُ الْمُتَصَرِّفَةُ وَأَقْسَامُهَا

রূপান্তরশীল ক্রিয়া ও উহার প্রকারভেদ

মূল অক্ষর হিসাবে أَسْمَاءِ مُتَمَكِّنَة বা পরিবর্তনশীল বিশেষ্য এবং أَفْعَالِ مُتَصَرِّفَة বা রূপান্তরশীল ক্রিয়া সমূহ দু’ভাগে বিভক্ত। যথাঃ

(১) ثُلَاثِى বা তিন অক্ষর বিশিষ্ট, (২) رُبَاعِى বা চার অক্ষর বিশিষ্ট।

১। فعل مَاضى – ثَلَاثِى বা অতীতকালীন ক্রিয়ার مَادَّة বা মূল অক্ষর তিনটি থাকলে তাকে ثُلَاثِى বলে। যথাঃ نَصَرَ – সে সাহায্য করল, ضَرَبَ – সে প্রহার করল ইত্যাদি।

২। فِعْل مَاضِى – رُبَاعِى তে মূল অক্ষর চারটি থাকলে তাকে رُبَاعِى বলে। যথা – بَعْثَرَ এবং عَرْقَبَ ইত্যাদি।

ثُلَاثِى এবং رُبَاعِى প্রত্যেক প্রকার فِعْل আবার দু’ভাগে বিভক্ত। যথাঃ (১) مُجَرَّد (২) مَزِيد فِيه । সুতরাং উভয় প্রকার فِعْل এর সর্বমোট প্রকার হয় চারটি। যথাঃ

(১) ثُلَاثِى مُجَرَّد :- যে সকল فِعْل مَاضى– তে মূল অক্ষর তিনটি থাকে, কোন অতিরিক্ত অক্ষর থাকে না তাকে ثُلَاثِى مُجَرَّد বলে। যথাঃ نَصَرَ – সে সাহায্য করল, فَتَحَ – সে খুলল ইত্যাদি।

(২) ثُلَاثِى مَزِيد فِيه :- যে সকল فِعْل مَاضى তে মূল অক্ষর তিনটি ছাড়াও অতিরিক্ত অক্ষর থাকে, তাকে ثُلَثِى مَزِيد فِيه বলে। যথাঃ إِجْتَنَبَ এখানে মূল অক্ষর جنب এবং إت অক্ষর দ্বয় অতিরিক্ত।

(৩) رُبَاعِى مُجَرَّد :- যে সকল فِعْل مَاضى তে মূল অক্ষর চারটি থাকে, কোন অতিরিক্ত অক্ষর থাকে না, তাকে رُبَاعِى مُجَرَّد বলে। যথাঃ عَرْقَبَ، بَعْثَرَ ইত্যাদি।

(৪) رُبَاعِى مَزِيد فِيه :- যে সকল فِعْل مَاضى তে মূল চারটি অক্ষর ছাড়াও অতিরক্ত অক্ষর থাকে তাকে رُبَاعِى مَزِيد فيه বলে। যথাঃ تَزَنْدَقَ এখানে زَنْدَقَ মূল হরফ চারটির সাথে ت অক্ষরটি অতিরিক্ত হিসাবে যুক্ত করা হয়েছে।

প্রকাশ থাকে যে, ثُلَاثِى مُجَرَّد বা তিন অক্ষর বিশিষ্ট ক্রিয়ার ৮টি بَاب আছে। এই ৮ টি বাব আবার দু’ভাগে বিভক্ত।

১। مُطَّرِد :- যে সকল ثُلَاثِى এর ওজন অধিক ব্যবহৃত হয়, তাদেরকে مُطَّرِد বলে। এর জন্য ৫টি بَاب বা ওজন আছে।

২। شَاذ :- যে সকল ثُلَاثِى এর ওজনগুলি খুব কম ব্যবহৃত হয়, তাদেরকে شَاذ বলে। তাদের জন্য ৩টি নির্দিষ্ট বাব বা ওজন আছে।

মনে রাখতে হবে উল্লেখিত বাবসমূহের সাথে যে শব্দের ওযনকে তুলনা করা হয় সেই শব্দকে مَوْزُون বলে এবং যে بَاب বা ওযনের সাথে তুলনা করা হয় তাকে مَوْزُون بِهِۦ বলে। যথাঃ نَصَرَ – يَنْصُرُ যাহা فَعَلَ – يَفْعُلُ এর ওযনে ব্যবহৃত হয়েছে। কাজেই نَصَرَ – يَنْصُرُ কে مَوْزُون বলা হয়। فَعَلَ – يَفْعُلُ কে مَوْزُون بِهِۦ বলা হয়। নিম্নে ثُلَاثِى مُجَرَّد এর ৮টি বাবের একটি ছক প্রদান করা হল।

جَدْوَل أَبْوَاب ثُلَاثى مُجَرَّد
মূল তিন বর্ণবিশিষ্ট বাবসমূহের ছক

أَبْوَابٌ مُطَّرِدٌ مَوْزُونٌ مَوْزُونٌ بِهِ كَلِمَة عمَاضِى كَلِمَة عمُضَارِع
بَابُ أَوَّلُ نَصَرَيَنْصُرُ فَعَلَيَفْعُلُ فَتَحة ضُمَّة
بَابُ ثَانى ضَرَبَيَضْرِبُ فَعَلَيَفْعِلُ فَتَحة كَسْرَة
بَابُ ثَالِث سَمِعَيَسْمَعُ فَعِلَيَفْعَلُ كَسْرَة فَتَحة
بَابُ رَابِع فَتَحَيَفْتَحُ فَعَلَيَفْعَلُ فَتَحة فَتَحة
بَابُ خَامِس كَرُمَيَكْرُمُ فَعُلَيَفْعُلُ ضُمَّة ضُمَّة
أَبْوَابُ شَاذ مَوْزُونٌ مَوْزُونٌ بِهِ كَلِمَة عمَاضِى كَلِمَة عمُضَارِع
بَابُ أَوَّلُ حَسِبَيَحْسِبُ فَعِلَيَفْعِلُ كَسْرَة كَسْرَة
بَابُ ثَانى فَضِلَيَفْضُلُ فَعِلَيَفْعُلُ كَسْرَة ضُمَّة
بَابُ ثَالِث كَوُدَيَكْوَدُ
كَاديَكَادُ
فَعُلَ يَفْعَلُ ضُمَّة فَتَحة

জ্ঞাতব্যঃ ইতিমধ্যে مِيزَان অংশে أَمْر – مُضَارِع – مَاضِىنَهِى সহ সকল بحث এর تَصْرِيف বা রূপান্ত করা হয়েছে। উহাতে প্রত্যেক بحث এর সকল صِيغَة এর বিস্তারিত বর্ণনা দেওয়ায় تَصْرِيف বা রূপান্তর সুদীর্ঘ হয়েছে এজন্য তাকে صَرْف كَبِير বলা হয়। কিন্তু مُنْشَعِب এর প্রত্যেক بَاب এর تَصْرِيف বা রূপান্তরে مَاضِىمُضَارِع এর مَعْرُوفمَضْحُول এবং أَمرنَهِى এর بحث গুলোর মাত্র একটি করে صِيغَة বর্ণনা করতঃ تَصْرِيف কে সংক্ষিপ্ত করা হয়েছে। এজন্য مُنْشَعِب এর تَصْرِيف কে صَرْف صَغِير বলা হয়। এখানে পর্যায়ক্রমে প্রতিটি بَاب এর صَرْف صَغِير বর্ণনা করা হল।

أَبْوَب ثُلَاثى مُجَرَّد مُطَّرِد

বহুল প্রচলিত মূল তিন বর্ণবিশিষ্ট বাবসমূহ।

أَبْوَب ثُلَاثى مُجَرَّد مُطَّرِد এর ৫টি বাব আছে। নিম্নে পর্যায়ক্রমে উহাদের صَرْف صَغِير বা সংক্ষিপ্ত রূপান্তর প্রদান করা হলো।

ٱلْبَابُ ٱلْأَوَّلُ
نَصَرَ – يَنْصُرُ
প্রথম বাব এর ওজন فَعَلَ – يَفْعُلُ
مَاضِى এর عَين কালিমায় مَفْتُوح এবং مُضَارِع এর عَين কালিমায় مَضْمُوم । মাসদার- ٱلنَّصْرُ وَٱلنُّصْرَةُ – সাহায্য করা।

تَصْرِيف بحث تَصْرِيف بحث
نَصَرَ   مَاضِى مَعْرُوف مِنْصَرَانِ وَ تَثْنِيَة إِسْمِ أَالَة صُغْرَٰى
يَنْصُرُ   مُضَارِع مَعْرُوف مِنْصَرَتَانِ وَ تَثْنِيَة إِسْمِ أَالَة وُسْطَٰى
نَصْرًا   مَصْدَر مِنْصَارَانِ وَ تَثْنِيَة إِسْمِ أَالَة كُبْرَٰى
نَاصِرٌ فَهُوَ إِسْمِ فَاعِل مَنَاصِرُ وَٱلْجَمْعُ مِنْهُمَا جَمْع إِسْم ظَرْف
نُصِرَ وَ مَاضِى مَجْهُول مَنَاصِرُ وَ جَمْع أِسْم أَالَة صُغْرَٰى وَ وُسْطَٰى
يُنْصَرُ   مُضَارِع مَجْهُول مَنَاصِيرُ وَ جَمْع أِسْم أَالَة كُبْرَٰى
نَصْرًا   مَصْدَر أَنْصَرُ وَ ٱلتَّفْضِيلُ مِنْهُ إِسْمِ تَفْضِيل وَاحِد مُذَكَّر
مَنْصُورٌ فَهُوَ إِسْم مَفْعُول نُصْرَٰى وَٱلْمُؤَنَّثِ مِنْهُ إِسْمِ تَفْضِيل وَاحِد مُؤَنَّث
أُنْصُرْ ٱلْأَمْرُ مِنْهُ أَمْر حَضِر مَعْرُوف أَنْصَرَانِ وَ تَثْنِيَتُهُمَا إِسْمِ تَفْضِيل تَثْنِيَة مُذَكَّر
لَاتَنْصُرْ وَٱلنَّهْىُ عَنْهُ نَهِى حَاضِر مَعْرُوف نُصْرَيَانِ وَ إِسْمِ تَفْضِيل تَثْنِيَة مُؤَنَّث
مَنْصَرٌ ٱلظَّرْفُ مِنْهُ إِسْم ظَرْف أَنْصَرُونَ أَوْ أَنَاصِرُ وَٱلْجَمْعُ مِنْهُمَا إِسْمِ تَفْضِيل جَمْع مُذَكَّر
مِنْصَرٌ وَٱلْأَالَةُ مِنْهُ إِسْم أَالَة صُغْرَٰى نُصَرٌ أَوْ نُصْرَيَاتٌ   إِسْمِ تَفْضِيل جَمْع مُؤَنَّث
مِنْصَرَةٌ وَ إِسْم أَالَة وُسْطَٰى      
مِنْصَارٌ وَ إِسْم أَالَة كُبْرَٰى      
مَنْصَرَانِ وَ تَثْنِيَتُهُمَا تَثْنِيَة إِسْم ظَرْف      
এই بَاب এর কতিপয় مَصْدَر বা ক্রিয়া মূলঃ- ٱلطَّلَبُ – তালাশ করা, ٱلدُّخُولُ – প্রবেশ করা, ٱلْقَتْلُ – হত্যা করা, ٱلْفَتْلُ – পাক দেওয়া, ٱلْخُرُوجُ – বের হওয়া, ٱلْ كِتَابَةُ – লিখা, ٱلْفَسَادُ – ধ্বংস করা, ٱلْحُكْمُ – আদেশ দেওয়া।

ٱلْبَابُ ٱلثَّانِى
ضَرَبَ – يَضْرِبُ
দ্বিতীয় বাব, ওজন فَعَلَ – يَفْعِلُ
مَاضِى এর عَين কালিমায় مَفْتُوح এবং مُضَارِع এর عَين কালিমায় مَكْسُور । মাসদার- ٱلضَّرْبُ – প্রহার করা।

تَصْرِيف بحث تَصْرِيف بحث
ضَرَبَ   مَاضِى مَعْرُوف مِضْرَبَانِ وَ تَثْنِيَة إِسْمِ أَالَة صُغْرَٰى
يَضْرِبُ   مُضَارِع مَعْرُوف مِضْرَبَتَانِ وَ تَثْنِيَة إِسْمِ أَالَة وُسْطَٰى
ضَرْبًا   مَصْدَر مِضْرَابَانِ وَ تَثْنِيَة إِسْمِ أَالَة كُبْرَٰى
ضَارِبٌ فَهُوَ إِسْمِ فَاعِل مَضَارِبُ وَٱلْجَمْعُ مِنْهُمَا جَمْع إِسْم ظَرْف
ضُرِبَ وَ مَاضِى مَجْهُول مَضَارِبُ وَ جَمْع أِسْم أَالَة صُغْرَٰى وَ وُسْطَٰى
يُضْرَبُ   مُضَارِع مَجْهُول مَضَارِيبُ وَ جَمْع أِسْم أَالَة كُبْرَٰى
ضَرْبًا   مَصْدَر أَضْرَبُ وَ ٱلتَّفْضِيلُ مِنْهُ إِسْمِ تَفْضِيل وَاحِد مُذَكَّر
مَضْرُوبٌ فَهُوَ إِسْم مَفْعُول ضُرْبَٰى وَٱلْمُؤَنَّثِ مِنْهُ إِسْمِ تَفْضِيل وَاحِد مُؤَنَّث
إِضْرِبْ ٱلْأَمْرُ مِنْهُ أَمْر حَضِر مَعْرُوف أَضْرَبَانِ وَ تَثْنِيَتُهُمَا إِسْمِ تَفْضِيل تَثْنِيَة مُذَكَّر
لَاتَضْرِبْ وَٱلنَّهْىِ عَنْهُ نَهِى حَاضِر مَعْرُوف ضُرْبَيَانِ وَ إِسْمِ تَفْضِيل تَثْنِيَة مُؤَنَّث
مَضْرِبٌ ٱلظَّرْفُ مِنْهُ إِسْم ظَرْف أَضْرَبُونَ أَوْ أَضَارِبُ وَٱلْجَمْعُ مِنْهُمَا إِسْمِ تَفْضِيل جَمْع مُذَكَّر
مِضْرَبٌ وَٱلْأَالَةُ مِنْهُ إِسْم أَالَة صُغْرَٰى ضُرَبٌ أَوْ ضُرْبَيَاتٌ   إِسْمِ تَفْضِيل جَمْع مُؤَنَّث
مِضْرَبَةٌ وَ إِسْم أَالَة وُسْطَٰى      
مِضْرَابٌ وَ إِسْم أَالَة كُبْرَٰى      
مَضْرِبَانِ وَ تَثْنِيَتُهُمَا تَثْنِيَة إِسْم ظَرْف      
এই بَاب এর কতিপয় مَصْدَر বা ক্রিয়া মূলঃ- ٱلْغُسْلُ – ধৌত করা, ٱلْغَلْبُ – বিজয়ী হওয়া, ٱلْظُّلْمُ – অত্যাচার করা, ٱلْفَصْلُ – পৃথক করা, ٱلْجُلُوسُ – বসা, ٱلْخَتْمُ – সমাপ্ত করা,।

ٱلْبَابُ ٱلثَّالِثُ
سَمِعَ – يَسْمَعُ
তৃতীয় বাব, ওজন فَعِلَ – يَفْعَلُ
مَاضِى এর عَين কালিমায় مَكْسُور এবং مُضَارِع এর عَين কালিমায় مَفْتُوح । মাসদার- ٱلسَّمْعُ – শ্রবণ করা।

تَصْرِيف بحث تَصْرِيف بحث
سَمِعَ   مَاضِى مَعْرُوف مِسْمَعَانِ وَ تَثْنِيَة إِسْمِ أَالَة صُغْرَٰى
يَسْمَعُ   مُضَارِع مَعْرُوف مِسْمَعَتَانِ وَ تَثْنِيَة إِسْمِ أَالَة وُسْطَٰى
سَمْعًا   مَصْدَر مِسْمَاعَانِ وَ تَثْنِيَة إِسْمِ أَالَة كُبْرَٰى
سَامِعٌ فَهُوَ إِسْمِ فَاعِل مَسَامِعٌ وَٱلْجَمْعُ مِنْهُمَا جَمْع إِسْم ظَرْف
سُمِعَ وَ مَاضِى مَجْهُول مَسَامِعُ وَ جَمْع أِسْم أَالَة صُغْرَٰى وَ وُسْطَٰى
يُسْمَعُ   مُضَارِع مَجْهُول مَسَامِيعُ وَ جَمْع أِسْم أَالَة كُبْرَٰى
سَمْعًا   مَصْدَر أَسْمَعُ وَ ٱلتَّفْضِيلُ مِنْهُ إِسْمِ تَفْضِيل وَاحِد مُذَكَّر
مَسْمُوعٌ فَهُوَ إِسْم مَفْعُول سُمْعَٰى وَٱلْمُؤَنَّثِ مِنْهُ إِسْمِ تَفْضِيل وَاحِد مُؤَنَّث
إِسْمَعْ ٱلْأَمْرُ مِنْهُ أَمْر حَضِر مَعْرُوف أَسْمَعَانِ وَ تَثْنِيَتُهُمَا إِسْمِ تَفْضِيل تَثْنِيَة مُذَكَّر
لَاتَسْمَعْ وَٱلنَّهْىِ عَنْهُ نَهِى حَاضِر مَعْرُوف سُمْعَيَانِ وَ إِسْمِ تَفْضِيل تَثْنِيَة مُؤَنَّث
مَسْمَعٌ ٱلظَّرْفُ مِنْهُ إِسْم ظَرْف أَسْمَعُونَ أَوْ أَسَامِعُ وَٱلْجَمْعُ مِنْهُمَا إِسْمِ تَفْضِيل جَمْع مُذَكَّر
مِسْمَعٌ وَٱلْأَالَةُ مِنْهُ إِسْم أَالَة صُغْرَٰى سُمَعٌ أَوْ سُمْعَيَاتٌ   إِسْمِ تَفْضِيل جَمْع مُؤَنَّث
مِسْمَعَةٌ وَ إِسْم أَالَة وُسْطَٰى      
مِسْمَاعٌ وَ إِسْم أَالَة كُبْرَٰى      
مَسْمَعَانِ وَ تَثْنِيَتُهُمَا تَثْنِيَة إِسْم ظَرْف      
এই بَاب এর কতিপয় مَصْدَر বা ক্রিয়া মূলঃ- ٱلْعِلْمُ – জানা, ٱلْفَهْمُ – বুঝা, ٱلْحِفْظُ – সংরক্ষণ করা, ٱلشَّهَادَةُ – সাক্ষ্য দেওয়া, ٱلْحَمْدُ – প্রশংসা করা, ٱلْجَهْلُ – অজ্ঞ হওয়া, ٱلْبُخْلُ – কৃপণতা করা।

ٱلْبَابُ ٱلرَّابِعُ
فَتَحَ – يَفْتَحُ
চতুর্থ বাব, ওজন فَعَلَ – يَفْعَلُ
مَاضِى এর عَين কালিমায় مَفْتُوح এবং مُضَارِع এর عَين কালিমায় مَفْتُوح । মাসদার- ٱلْفَتْحُ – খোলা।

تَصْرِيف بحث تَصْرِيف بحث
فَتَحَ   مَاضِى مَعْرُوف مِفْتَحَانِ وَ تَثْنِيَة إِسْمِ أَالَة صُغْرَٰى
يَفْتَحُ   مُضَارِع مَعْرُوف مِفْتَحَتَانِ وَ تَثْنِيَة إِسْمِ أَالَة وُسْطَٰى
فَتْحًا   مَصْدَر مِفْتَاحَانِ وَ تَثْنِيَة إِسْمِ أَالَة كُبْرَٰى
فَاتِحٌ فَهُوَ إِسْمِ فَاعِل مَفَاتِحُ وَٱلْجَمْعُ مِنْهُمَا جَمْع إِسْم ظَرْف
فُتِحَ وَ مَاضِى مَجْهُول مَفَاتِحُ وَ جَمْع أِسْم أَالَة صُغْرَٰى وَ وُسْطَٰى
يُفْتَحُ   مُضَارِع مَجْهُول مَفَاتِيحُ وَ جَمْع أِسْم أَالَة كُبْرَٰى
فَتْحًا   مَصْدَر أَفْتَحُ وَ ٱلتَّفْضِيلُ مِنْهُ إِسْمِ تَفْضِيل وَاحِد مُذَكَّر
مَفْتُوحٌ فَهُوَ إِسْم مَفْعُول فُتْحَٰى وَٱلْمُؤَنَّثِ مِنْهُ إِسْمِ تَفْضِيل وَاحِد مُؤَنَّث
إِفْتَحْ ٱلْأَمْرُ مِنْهُ أَمْر حَضِر مَعْرُوف أَفْتَحَانِ وَ تَثْنِيَتُهُمَا إِسْمِ تَفْضِيل تَثْنِيَة مُذَكَّر
لَاتَفْتَحْ وَٱلنَّهْىِ عَنْهُ نَهِى حَاضِر مَعْرُوف فُتْحَيَانِ وَ إِسْمِ تَفْضِيل تَثْنِيَة مُؤَنَّث
مَفْتَحٌ ٱلظَّرْفُ مِنْهُ إِسْم ظَرْف أَفْتَحُونَ أَوْ أَفَاتِحُ وَٱلْجَمْعُ مِنْهُمَا إِسْمِ تَفْضِيل جَمْع مُذَكَّر
مِفْتَحٌ وَٱلْأَالَةُ مِنْهُ إِسْم أَالَة صُغْرَٰى فُتَحٌ أَوْ فُتْحَيَاتٌ   إِسْمِ تَفْضِيل جَمْع مُؤَنَّث
مِفْتَحَةٌ وَ إِسْم أَالَة وُسْطَٰى      
مِفْتَاحٌ وَ إِسْم أَالَة كُبْرَٰى      
مَفْتَحَانِ وَ تَثْنِيَتُهُمَا تَثْنِيَة إِسْم ظَرْف      
এই بَاب এর কতিপয় مَصْدَر বা ক্রিয়া মূলঃ- ٱلْمَنْعُ – নিষেধ করা, ٱلصَّبْغُ – রং করা, ٱلرَّهْنُ – বন্ধক রাখা, ٱلسَّلْخُ – চামরা খসান ইত্যাদি। জ্ঞাতব্যঃ যে সকল فِعْل এই بَاب এর ওযনে আসে উহাদের ع কালিমাতে حَرف حَلْق থাকে। حَرف حَلْق হচ্ছে ح، خ، ع، غ، ء، ه

ٱلْبَابُ ٱلْخَامِسُ
كَرُمَ – يَكْرُمُ
পঞ্চম বাব, ওজন فَعُلَ – يَفْعُلُ
مَاضِى এর عَين কালিমায় مَضْمُوم এবং مُضَارِع এর عَين কালিমায় مَضْمُوم । মাসদার- ٱلْكَرَمُ وَالْكَرَامَةُ – সম্মানিত হওয়া।

تَصْرِيف بحث تَصْرِيف بحث
كَرُمَ   مَاضِى مَعْرُوف مَكَارِمُ وَٱلْجَمْعُ مِنْهُمَا جَمْع إِسْم ظَرْف
يَكْرُمُ   مُضَارِع مَعْرُوف مَكَارِمُ   جَمْع أِسْم أَالَة صُغْرَٰى وَ وُسْطَٰى
كَرَمًا وَ كَرَامَةً   مَصْدَر مَكَارِيمُ وَ جَمْع إِسْم آلَة كُبْرَٰى
كَرِيمٌ فَهُوَ إِسْمِ فَاعِل أَكْرَمُ ٱلتَّفْضِيلُ مِنْهُ إِسْم تَفْضِيل وَاحِد مُذَكَّر
أُكْرُمْ ٱلْأَمْرُ مِنْهُ أَمر حَاضِر مَعْرُوف كُرْمَٰى وَ ٱلْمُؤَنَّثُ مِنْهُ إِسْم تَفْضِيل وَاحِد مُؤَنَّث
لَا تَكْرُمْ وَٱلنَّهْىِ عَنْهُ نَهْى حَاضِر مَعْرُوف أَكْرَمَانِ وَتَثْنِيَتُهُمَا إِسْم تَفْضِيل تَثْنِيَة مُذَكَّر
مَكْرَمٌ وَٱلظَّرْفُ مِنْهُ إِسْمِ ضَرْف كُرْمَيَانِ وَ إِسْمِ تَفْضِيل تَثْنِيَة مُؤَنَّث
مِكْرَمٌ وَٱلْأَالَةُ مِنْهُ إِسْم آلَة صُغْرَٰى أَكْرَمُونَ أَوْ أَكَارِمُ وَٱلْجَمْعُ مِنْهُمَا إِسْمِ تَفْضِيل جَمْع مُذَكَّر
مِكْرَمَةٌ وَ إِسْم آلَة وُسْطَٰى كُرَمٌ أَوْ كُرْمَيَاتٌ   إِسْم تَفْضِيل جَمْع مُؤَنَّث
مِكْرَامٌ وَ إِسْم آلَة كُبْرَٰى      
مَكْرَمَانِ وَتَثْنِيَتُهُمَا تَثْنِيَة إِسْم ظَرْف      
مِكْرَمَانِ وَ تَثْنِيَة إِسْم أَالَة صُغْرَٰى      
مِكْرَمَاتَانِ وَ تَثْنِيَ إِسْم أَالَة وُسْطَٰى      
مِكْرَامَانِ وَ إِسْم أَالَة كُبْرَٰى      
           
এই بَاب এর কতিপয় مَصْدَر বা ক্রিয়া মূলঃ- ٱللُّطْفُ وَٱللَّطَافَةُ – পাতলা হওয়া, ٱلْقُرْبُ – নিকটবর্তী হওয়া, ٱلْبُعْدُ – দূর হওয়া, ٱلْكَثْرَةُ – অধিক হওয়া। জ্ঞাতব্যঃ এই বাবটি لَازِم বা অকর্ম। যেহেতু এ বাবের مَجْهُول হয় না তাই এই বাবের إِسْم فَاعِل সাধারণত فَعِيلٌ এর ওযনে আসে।

أَبْوَاب ثُلَاثِى مُجَرَّد شَاذ

কম প্রচলিত মূল তিন বর্ণবিশিষ্ট বাবাসমূহ।

ثَلَاثِى مُجَرَّد شَاذ এর তিনটি বাব আছে। নিম্নে পর্যায়ক্রমে উহাদের صَرْف صَغِير বা সংক্ষিপ্ত রূপান্তর প্রদান করা হলঃ

ٱلْبَابُ ٱلْأَوَّلُ
حَسِبَ – يَحْسِبُ
شَاذ এর প্রথম বাব, ওজন فَعِلَ – يَفْعِلُ
مَاضِى এর عَين কালিমায় كَسْرَة এবং مُضَارِع এর عَين কালিমায় كَسْرَة । মাসদার- ٱلْحَسْبُ وَٱلْحُسْبَانُ – ধারণা করা।

تَصْرِيف بحث تَصْرِيف بحث
حَسِبَ   مَاضِى مَعْرُوف مَحْسِبَانِ وَتَثْنِيَتُهُمَا تَثْنِيَة إِسْم ظَرْف
يَحْسِبُ   مُضَارِع مَعْرُوف مِحْسَبَانِ و تَثْنِيَة إِسْمِ آلَة صُغْرَٰى
حَسْبًا وَحُسْبَانًا   مَصْدَر مِحْسَبَتَانِ وَ تَثْنِيَة إِسْمِ آلَة وُسْطَٰى
حَاسِبٌ فَهُوَ إِسْم فَاعِل مِحْسَابَانِ وَ تَثْنِيَة إِسْم آلَة كُبْرَٰى
حُسِبَ وَ مَاضِى مَجْهُول مَحَاسِبُ وَٱلْجَمْعُ مِنْهُمَا جَمْع إِسْمِ ظَرْف
يُحْسَبُ   مُضَارِع مَجْهُول مَحَاسِبُ   جَمْع إِسْم آلَة صُغْرَٰى وَ وُسْطَٰى
حَسْبًا وَحُسْبَانًا   مَصْدَر مَحَاسِيْبُ و جَمْع إِسْم آلَة كُبْرَٰى
مَحْسُوبٌ فَهُوَ إِسْم مَفْعُول أَحْسَبُ ٱلتَّفْضِيلُ مِنْهُ إِسْم تَفْضِيل وَاحِد مُذَكَّر
إِحْسِبْ ٱلْأَمْرُ مِنْهُ أَمْر حَاضِر مَعْرُوف حُسْبَٰى ٱلْمُؤَنَّثُ مِنْهُ إِسْم تَفْضِيل وَاحِد مُؤَنَث
لَاتَحْسِبْ وَٱلنَّهْىِ عَنْهُ نَهِى حَاضِر مَعْرُوف أَحْسَبَانِ وَتَثْنِيَةُهُمَا إِسْم تَفْضِيل تَثْنِيَة مُذَكَّر
مَحْسِبٌ ٱلظَّرْفُ مِنْهُ إِسْم ظَرْف حُسْبَيَانِ وَ إِسْم تَفْضِيل تَثْنِيَة مُؤَنَّث
مِحْسَبٌ وَٱلْ آلَة مِنْهُ إِسْم آلَة صُغْرَٰى أَحْسَبُونَ أَوْ أَحَاسِبُ وَٱلْجَمْعُ مِنْهُمَا إِسْم تَفْضِيل جَمْع مُذَكَّر
مِحْسَبَةٌ وَ إِسْم آلَة وُسْطَٰى حُسَبٌ اَوْ حُسْبَيَاتٌ   إِسْم تَفْضِيل جُمْع مُؤَنَّث
مِحْسَابٌ وَ إِسْمِ آلَة كُبْرَٰى      
এই بَاب এর কতিপয় مَصْدَر বা ক্রিয়া মূলঃ- ٱلنَّعْمُ وَٱلنَّعْمَةُ – সুখী হওয়া। জ্ঞাতব্যঃ এই দুইটি ওযন ছাড়া এই বাবের অন্য কোন খাঁট ওযন পাওয়া যায় না।

ٱلْبَابُ ٱلثَّانِى
فَضِلَ – يَفْضُلُ
شَاذ এর দ্বিতীয় বাব, ওজন فَعِلَ – يَفْعُلُ
مَاضِى এর عَين কালিমায় كَسْرَة এবং مُضَارِع এর عَين কালিমায় فَتَحَة । মাসদার- ٱلْحَسْبُ وَٱلْفَضْلُ – বৃদ্ধি করা বা হওয়া।

تَصْرِيف بحث تَصْرِيف بحث
فَضِلَ   مَاضِى مَعْرُوف مَفْضَالَانِ   تَثْنِيَة إِسْمِ ظَرْف
يَفْضُلُ   مُضَارِع مَعْرُوف مِفْضَالَانِ وَ تَثْنِيَة إِسْمِ آلَة صُغْرَٰى
فَضْلًا   مَصْدَر مِفْضَلَتَانِ وَ تَثْنِيَة إِسْمِ آلَة وُسْطَٰى
فَاضِلٌ فَهُوَ إِسْمِ فَاعِلٌ مِفْضَالَانِ وَ تَثْنِيَة إِسْمِ آلَة كُبْرَٰى
فُضِلَ   مَاضِى مَجْهُول مَفَاضِلُ وَ ٱلْجَمْعُ مِنْهُمَا جَمْع إِسْم ظَرْف
يُفْضَلُ   مُضَارِع مَجْهُول مَفَاضِلُ   جَمْع إِسْمِ آلَة صُغْرَٰى وَ وُسْطَٰى
فَضْلًا   مَصْدَر مَفَاضِيلُ   جُمْع إِسْمِ آلَة كُبْرَٰى
مَفْضُولٌ فَهُوَ إِسْمِ مَفْعُول أَفْضَلُ وَٱلتَّفْضِيلُ مِنْهُ إِسْمِ تَفْضِيل وَاحِد مُدّكَّر
أُفْضُلْ ٱلْأَمْرُ مِنْهُ أَمْر حَاضِر مَعْرُوف فُضْلَٰى وَٱلْمُؤَنَّثُ مِنْهُ إِسْمِ تَفْضِيل وَاحِد مُؤَنَّث
لَاتَفْضُلْ وَٱلنَّهِىِ عَنْهُ نَهْىِ حَاضِر مَعْرُوف أَفْضَلَانِ وَٱلتَّثْنِيَتُهُمَا إِسْمِ تَفْضِيل تَثْنِيَة مُذَكَّر
مَفْضَلٌ وَٱلظَّرْفُ مِنْهُ إِسْمِ ظَرْف فُضْلَيَانِ وَ إِسْمِ تَفْضِيل تَثْنِيَة مُؤَنَّثُ
مِفْضَلٌ وَٱلْأالَةُ مِنْهُ إِسْمِ آَلَة صُغْرَٰى أَفْضَلُونَ أَوْ أَفَاضِلُ ٱلْجَمْعُ مِنْهُمَا إِسْمِ تَفْضِيل جَمْع مُذَكَّر
مِفْضَلَةٌ وَ إِسْمِ آَلَة وُسْطَٰى فُضَلٌ أَوْ فُضْلَيَاتٌ   إِسْمِ تَفْضِيل جَمْع مُؤَنَّث
مِفْضَالٌ وَ إِسْمِ آَلَة كُبْرَٰى      
জ্ঞাতব্যঃ ٱلْفَضْلُ শব্দটি এই বাবের বিশুদ্ধ মাসদার। কেহ কেহ حَضِرَ – يَحْضُرُ এবং نَعِمَ – يَنْعُمُ এই বাবের মধ্যে অন্তর্ভুক্ত করে থাকেন।

ٱلْبَابُ ٱلثَّالِثُ
كَادَ – يَكَادُ
شَاذ এর তৃতীয় বাব, ওজন فَعُلَ – يَفْعَلُ
مَاضِى এর عَين কালিমায় مَضْمُوم এবং مُضَارِع এর عَين কালিমায় مَفْتُوح । মাসদার- ٱلْكُودُ وَٱلْكَيْدُودَةُ চাওয়া বা নিকটবর্তী হওয়া।

تَصْرِيف بحث تَصْرِيف بحث
كَادَ   مَاضِى مَعْرُوف      
يَكَادُ   مُضَارِع مَعْرُوف مَكَادَانِ وَتَثْنِيَتُهُمَا تَثْنِيَة إِسْمِ ظَرْف
كَوْدًا وَ كَيْدُودَةً   مَصْدَر مِكْوَدَانِ وَ تَثْنِيَة إِسْمِ آلَة صُغْرَٰى
كَائِدٌ فَهُوَ إِسْمِ فَاعِل مِكْوَدَتَانِ وَ تَثْنِيَة إِسْمِ آلَة وُسْطَٰى
كِيْدَ وَ مَاضِى مَجْهُول مِكْوَادَانِ وَ تَثْنِيَة إِسْمِ آلَة كُبْرَٰى
يُكَادُ   مُضَارِع مَجْهُول مَكَاوِدُ وَٱلْجَمْعُ مِنْهُمَا جَمْع إِسْمِ ظَرْف
كَوْدًا وَ كَيْدُودَةً   مَصْدَر مَكَاوِدُ   جَمْع إِسْمِ آلَة صُغْرَٰى وَ وُسْطَٰى
مَكُودٌ فَهُوَ إِسْمِ مَفْعُول مَكَاوِيدُ وَ جُمْع إِسْمِ آلَة كُبْرَٰى
كَدْ ٱلْأَمْرُ مِنْهُ أَمْر حَاضِى مَعْرُوف اَكْوَدُ ٱلتَّفْضِيلُ مِنْهُ إِسْمِ تَفْضِيل وَاحِد مُذَكَّر
لَاتَكَدْ وَٱلنَّهْىِ عَنْهُ نَهْىِ حَاضِر مَعْرُوف كُودَٰى وَٱلْمُؤَنَّثُ مِنْهُ إِسْمِ تَفْضِيل وَاحِد مُؤَنَّث
مَكَادٌ وَٱلظَّرْفُ مِنْهُ إِسْمِ ظَرْف أَكْوَدَانِ وَتَثْنِيَتُهُمَا إِسْمِ تَفْضِيل تَثْنِيَة مُذَكَّر
مِكْوَدٌ وَٱلْأَالَةُ مِنْهُ إِسْمِ آَلَة صُغْرَٰى كُودَيَانِ وَ إِسْمِ تَفْضِيل تَثْنِيَة مُؤَنَّث
مِكْوَدَةٌ وَ إِسْمِ آَلَة وُسْطَٰى أَكْوَدُونَ اَوْ أَكَاوِدُ وَٱلْجَمْعُ مِنْهُمَا إِسْمِ تَفْضِيل جَمْع مُذَكَّر
مِكْوَادٌ وَ إِسْمِ آَلَة كُبْرَٰى كُوَدٌ أَوْ كُودَيَاتٌ وَ إِسْمِ تَفْضِيل جَمْع مُؤَنَّث
জ্ঞাতব্যঃ এই বাব হতে কোন فِعْل صَحيح ব্যবহৃত হয় না বলে এই বাবে فِغْل مُعتل বা হরফে ইল্লাত (ا – و – ى) বিশিষ্ট ক্রিয়া এর মাধ্যমে উদাহরণ আনা হয়েছে। উচ্চতর সরফ্ কিতাবে এটা নিয়ে আলোচনা করা হবে ইনশাআল্লাহ।

Page 2

Elmus Sarf

Page 2

© Dawah wa Tablig is the proparty of Md. Shamsul Alam since 2013